Comjagat.com-The first IT magazine in Bangladesh
  • ভাষা:
  • English
  • বাংলা
হোম > পিসি’র ঝুটঝামেলা
লেখক পরিচিতি
লেখকের নাম: কজ
মোট লেখা:১০৪১
লেখা সম্পর্কিত
পাবলিশ:
২০১১ - জুলাই
তথ্যসূত্র:
কমপিউটার জগৎ
লেখার ধরণ:
ট্রাবলশূটিং
তথ্যসূত্র:
ট্রাবলশুটার টিম
ভাষা:
বাংলা
স্বত্ত্ব:
কমপিউটার জগৎ
পিসি’র ঝুটঝামেলা



কমপিউটার জগৎ ট্রাবলশূটার টিম



কমপিউটার ব্যবহারকারীদের নিত্যনতুন সমস্যায় পড়তে হয়। কিন্তু আমাদের এই নতুন বিভাগ ‘পিসির ঝুটঝামেলা’তে পিসির হার্ডওয়্যার, সফটওয়্যার, নেটওয়ার্ক, ভাইরাসজনিত সমস্যা, ভিডিও গেম সম্পর্কিত সমস্যা, পিসি কেনার ব্যাপারে পরামর্শ ইত্যাদিসহ যাবতীয় সব ধরনের কমপিউটারের সমস্যার সমাধান দেয়া হবে। আপনাদের সমস্যাগুলো আমাদের এই বিভাগের মেইল অ্যাড্রেসে (jhutjhamela@comjagat.com) বা কমপিউটার জগৎ, কক্ষ নম্বর-১১, বিসিএস কমপিউটার সিটি, রোকেয়া সরণি, আগারগাঁও, ঢাকা-১২০৭ ঠিকানায় চিঠি লিখে জানান প্রতিমাসের ২০ তারিখের মধ্যে। উল্লেখ্য, মেইলের মাধ্যমে পাঠানো সমস্যার সমাধান যত দ্রুত সম্ভব মেইলের মাধ্যমেই জানিয়ে দেয়া হবে এবং সেখান থেকে বাছাই করা কিছু সমস্যা ও তার সমাধান প্রেরকের নাম- ঠিকানাসহ ম্যাগাজিনের এই বিভাগে ছাপানো হবে। সফটওয়্যার ও হার্ডওয়্যারের সমস্যা পাঠানোর সময় পিসির কনফিগারেশন, অপারেটিং সিস্টেম, পিসিতে ব্যবহার হওয়া অ্যান্টিভাইরাস প্রোগ্রাম, পিসি কতদিন আগে কেনা এবং পিসির ওয়ারেন্টি এখনো আছে কি না- এসব গুরুত্বপূর্ণ বিষয় উল্লেখ করার অনুরোধ জানানো হচ্ছে।



সমস্যা : আমার পিসিতে ৪ গিগাবাইট র্যা্ম রয়েছে এবং আমি উইন্ডোজ সেভেন ৩২ বিট অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করি। কিন্তু সিস্টেমে ৩.২৫ গিগাবাইট দেখায়। আমি শুনেছি উইন্ডোজ সেভেন ৩২ বিট ৪ গিগাবাইটের বেশি মেমরি সাপোর্ট করে না। আমি আরও ২ গিগাবাইট র্যাবম লাগাতে চাই। আমার প্রশ্ন হচ্ছে, তা কাজ করবে কি না? আমার পিসির কনফিগারেশন হচ্ছে- প্রসেসর : এএমডি ফেনম টু এক্সফোর ৯৬৫, মাদারবোর্ড : এমএসআই ৮৮০ জিএমএ ই-৪৫ ও র্যা্ম : সিলিকন পাওয়ার (২+২) গিগাবাইট। আমার কমপিউটারের সিপিইউ শক করে। আমি ইউপিএস ব্যবহার করি তাও শক করে। এ থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায় কী?

-সৈয়দ তানভীর আহমেদ



সমাধান :
৩২ বিট অপারেটিং সিস্টেম ৪ গিগাবাইটের বেশি র্যা ম সাপোর্ট করে না। ৩২ বিট অপারেটিং সিস্টেম ৩ গিগাবাইটের কিছু বেশি (৩.২৫-৩.৭৫ গিগাবাইট) পর্যন্ত র্যা ম সাপোর্ট করে। ৪ গিগাবাইটের বেশি র্যা ম সাপোর্ট করানোর জন্য আপনাকে ৬৪ বিট অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করতে হবে। উইন্ডোজ সেভেন আল্টিমেট ৬৪ বিট অপারেটিং সিস্টেম ১৯২ গিগাবাইট র্যাজম সাপোর্ট করে। আপনি কী কাজে কমপিউটার ব্যবহার করেন, গেম খেলার জন্য না অন্য কোনো ভারি কাজ করার জন্য, তা উল্লেখ করেননি। আপনার পিসিতে গ্রাফিক্স কার্ড আছে কি না, তাও বলেননি। গেমার হয়ে থাকলে আপনার র্যা ম বাড়ানোর চেয়ে গ্রাফিক্স কার্ড কেনাটা বেশি ভালো হবে। নতুন গ্রাফিক্স কার্ড কিনলে সাথে ভালোমানের পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট কিনতে হবে। গেমারদের জন্য, গ্রাফিক্স ডিজাইন বা ভিডিও এডিটিংয়ের কাজে ৬৪ বিট অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করা উচিত। বেশি র্যািম ব্যবহার করতে চাইলে আপনার ৬৪ বিট অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করা ছাড়া কোনো গতি নেই। কমপিউটারের সাথে তিন পিনের পাওয়ার কানেক্টর ব্যবহার করলে তা শক করবে না। তিন পিনের পাওয়ার কানেক্টর লাগানোর সুবিধা না থাকলে ইলেকট্রিশিয়ান ডেকে সিপিইউ আর্থিং করার ব্যবস্থা করে নিন। তাহলে আপনার সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে।



সমস্যা : আমার বেশ কিছু প্রশ্ন রয়েছে, এগুলো হলো- ০১. আমার কমপিউটারে ইসেট স্মার্ট সিকিউরিটি অ্যান্টিভাইরাস আছে। আমার ইন্টারনেট সংযোগ আছে। বিভিন্ন পত্রিকায় দেখলাম ইন্টারনেট সংযোগ থাকলে অ্যান্টিভাইরাসের পাশাপাশি ইন্টারনেট সিকিউরিটি এবং অ্যান্টিম্যালওয়্যার ইনস্টল থাকতে হবে। তার মানে উক্ত ৩টি জিনিস কী একই সাথে ইনস্টল থাকতে হবে? ইসেট স্মার্ট সিকিউরিটি অ্যান্টিভাইরাসের পাশাপাশি আর কী কী সতর্কতামূলক জিনিস ইনস্টল একসাথে রাখা যাবে? ফ্রি হিসেবে যেসব সতর্কতামূলক জিনিস ইসেট স্মার্ট সিকিউরিটি অ্যান্টিভাইরাসের পাশাপাশি একই সাথে রাখা যাবে সেগুলোর মধ্যে সবচেয়ে ভালো কোনগুলো? ০২. আমার পিসি কনফিগারেশন হচ্ছে- প্রসেসর : ইন্টেল পেন্টিয়াম ৪, ২.৬৬ গিগাহার্টজ, মাদারবোর্ড : গিগাবাইট GA-8I915MD-GV+Intel 915GV/ICH6 (mATX, LGA 775 Socket), অপারেটিং সিস্টেম : উইন্ডোজ এক্সপি প্রফেশনাল, মনিটর : ১৭ ইঞ্চি সিআরটি, র্যা ম : ১ গিগাবাইট ডিডিআর২। বর্তমান মাদারবোর্ডের পরিপ্রেক্ষিতে আমি যদি নতুন প্রসেসর কিনতে চাই, তবে ইন্টেলের কোন ধরনের এবং কী পরিমাণ শক্তিশালী প্রসেসর কেনা যাবে? ০৩. ব্রাউজারে অভ্র কীবোর্ডে লিখতে গেলে যুক্ত অক্ষর হয় না। যুক্ত অক্ষরের মাঝে & থাকে। যেমন : শিক্ষা = শিক্ষা-এর ফলে গুগল সার্চ ঠিকমতো হয় না। এই সমস্যা থেকে মুক্তির উপায় কি? ০৪. ফায়ারফক্স ৪-এর অ্যাড-অনস ইনস্টল করা যাচ্ছে না। আগের ভার্সনে মেনু থেকে অ্যাড-অনসে গিয়ে তা ইনস্টল করা যেত, কিন্তু ফায়ারফক্স ৪-এর ক্ষেত্রে তা কোথায় পাওয়া যাবে? ০৫. ইসেট স্মার্ট সিকিউরিটি ও পান্ডা ভ্যাকসিন কী একসাথে ব্যবহার করা যাবে?

-মুহাম্মদ মাহমুদুর রহমান শরীফ



সমাধান :
আপনার সমস্যাগুলোর সমাধান পর্যায়ক্রমে দেয়া হলো- ০১. ইন্টারনেট সিকিউরিটি সফটওয়্যার হচ্ছে পরিপূর্ণ সিকিউরিটি। এতে একই সাথে অ্যান্টিভাইরাস, অ্যান্টিস্পাইওয়্যার, অ্যান্টিম্যালওয়্যারসহ আরও অনেক ধরনের সিকিউরিটি ফিচার থাকে। তাই শুধু ভালোমানের ইন্টারনেট সিকিউরিটি ইনস্টল করলেই হবে। বাকিগুলো লাগবে না। ক্যাসপারস্কি, নরটন, বিটডিফেন্ডার, ইসেট, জি-ডাটা, পান্ডা, জোন-অ্যালার্ম, ট্রেন্ড-মাইক্রো, অ্যাভাইরা, এভিজি ইত্যাদি বেশ কিছু কোম্পানির ইন্টারনেট সিকিউরিটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে। এগুলোর দাম ৭০০-১০০০ টাকার মতো। ওয়েবসাইটে র্যাকঙ্কিং দেখে বা ইউজারদের মতামতের ওপরে ভিত্তি করে বেছে নিতে পারেন আপনার পছন্দের সিকিউরিটি সফটওয়্যার। যদি আলাদা করে আর সিকিউরিটি সফটওয়্যার কিনতে না চান, তবে ডেস্কটপ ব্রাউজিংয়ের জন্য টোটাল কমান্ডার বা এ ধরনের অল্টারনেটিভ উইন্ডোজ এক্সপ্লোরার ব্যবহার করুন, পেনড্রাইভ থেকে ভাইরাস সংক্রমণ রোধ করার জন্য ইনস্টল করুন ইউএসবি ডিস্ক সিকিউরিটি বা এ ধরনের সফটওয়্যার এবং আপনার অ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যার নিয়মিত আপডেট করুন। ০২. মাদারবোর্ডের ম্যানুয়ালে উল্লেখ করা আছে তা শুধু পেন্টিয়াম ৪ মানের প্রসেসর সাপোর্ট করবে। বাজারে পেন্টিয়াম ৪ প্রসেসর খুব একটা দেখা যায় না। তাই প্রসেসর আপগ্রেড করার ব্যাপারে কোনো সুফল পাবেন না। প্রসেসরের ও মাদারবোর্ড প্যাকেজের দাম আগের তুলনায় অনেক কমে গেছে। তাই ভালো হবে বাজার ঘেঁটে যেটি আপনার বাজেটের মধ্যে পড়ে, তা কিনে নেয়া। এতে আরও ভালো ফল পাবেন। পুরনো পিসিটি সেলবাজার ডটকম, ক্লিকবিডি ডটকম বা দেশিলিস্টিংস ডটকমে বিক্রির বিজ্ঞাপন দিতে পারেন অথবা অন্য কারো কাছে তা বিক্রি করে দিতে পারেন। ইন্টেলের নতুন প্রসেসর সিরিজ কোর আই থ্রি, ফাইভ, সেভেন এবং এএমডির অ্যাথলন ২, ফেনম ২ ইত্যাদি সিরিজের অনেক শক্তিশালী প্রসেসর বাজারে বেশ চলছে। তাই ফুল পিসি আপগ্রেড করাটাই বুদ্ধিমানের কাজ হবে। ০৩. অভ্র সফটওয়্যারের নতুন ভার্সনটি (৫.১.০) ডাউনলোড করে নিন http://www.omicronlab.com/avro-keyboard.html সাইট থেকে। তাহলেই আপনার সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। ০৪. ফায়ারফক্স ৪ সাপোর্টেড অ্যাড-অনসের সংখ্যা খুব কম। তাই সব অ্যাড-অনস এতে ইনস্টল হবে না, তবে শিগগিরই এ সমস্যার সমাধান করে মজিলা নতুন আপডেট দিতে পারেন। এজন্য ফায়ারফক্স নিয়মিত আপডেট করুন অথবা ফায়ারফক্স ৪-এর জন্য পূর্ণ সাপোর্ট না আসা পর্যন্ত পুরনো ভার্সন ব্যবহার করুন। ০৫. ইসেট স্মার্ট সিকিউরিটি ও পান্ডা ভ্যাকসিন একসাথে ব্যবহার করা যাবে, এতে তেমন কোনো সমস্যা হবে না।



সমস্যা : আমি অনেক জিটিএ এপিসোডস ফ্রম লিবার্টি সিটি গেমটির ডিভিডি কিনেছি, কিন্তু কোনোটিতেই রকস্টার গেমস সোস্যাল ক্লাব সফটওয়্যারটি পাইনি। আমি কোথায় এ গেমের ভালো একটি কপি পেতে পারি?

-স্বপ্নাশীষ ভট্টাচার্য



সমাধান :
গেমের ডিভিতে সফটওয়্যারটি থাকার কথা। হয়তো কোনো কারণে দেয়া হয়নি। সঠিকভাবে বলা যাচ্ছে না কোন কোম্পানির ডিভিডিতে এটি আছে। ইন্টারনেট থেকে সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিতে হবে। নিচের লিঙ্কটি থেকে ক্লায়েন্ট সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিন। http://www.fileplanet.com/195614/190000/fileinfo/Rockstar-Games-Social-Club-Client-v1.1-। ফাইলের আকার প্রায় ২১২ মেগাবাইটের মতো।



সমস্যা : পিসিতে পাসওয়ার্ড দেয়া থাকলেও অ্যাডমিনিস্ট্রেটর হিসেবে ঢোকা যায়। এটা কীভাবে ডিজ্যাবল করব?

-আশিক রহমান



সমাধান :
উইন্ডোজ এক্সপির ক্ষেত্রে ইউজার অ্যাকাউন্টে পাসওয়ার্ড দেয়া থাকলেও লগ-ইনের সময় অ্যাডমিনিস্ট্রেটর হিসেবে পাসওয়ার্ড না দিয়েও ঢোকা সম্ভব। এ সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে চাইলে অ্যাডমিনিস্ট্রেটর অ্যাকাউন্টে পাসওয়ার্ড সেট করতে হবে। আপনার সাধারণ ইউজার অ্যাকাউন্টে না ঢুকে অ্যাডমিনিস্ট্রেটর হিসেবে লগ-ইন করুন এবং ইউজার অ্যাকাউন্ট সেটিংস থেকে তাতে পাসওয়ার্ড সেট করে দিন। এরপর কেউ যদি ইউজার অ্যাকাউন্ট বাইপাস করে অ্যাডমিনিস্ট্রেটর হিসেবে ঢুকতে চায়, তবে পাসওয়ার্ড দিয়ে লগ-ইন করতে হবে।



সমস্যা : আমার পিসির কনফিগারেশন ইন্টেল কোর টু ডুয়ো ২.৪ গিগাহার্টজ, মাদারবোর্ড ডিজি৩১পিআর, ৩ গিগাবাইট ডিডিআর২ র্যা ম ও উইন্ডোজ এক্সপি সার্ভিস প্যাক ২ অপারেটিং সিস্টেম। আমি সম্প্রতি একটি ৩২০ গিগাবাইট ধারণক্ষমতার ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল এক্সটার্নাল হার্ডডিস্ক কিনেছি। হার্ডডিস্কটি পিসিতে কানেক্ট করার কিছুক্ষণের মধ্যেই তা ডিসকানেক্ট হয়ে যায়। আমি অন্য পিসিতে কাজ করে দেখেছি ঠিকভাবে কাজ করে, কিন্তু আমার পিসিতেই সমস্যা করে। প্রায় ৩০০ মেগাবাইট ডাটা ট্রান্সফার করার পরপরই তা ডিসকানেক্ট হয়ে যায় এবং আবার কানেক্ট হয়। আমি লাইসেন্সড অ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করি। কিভাবে এ সমস্যার সমাধান করব জানাবেন।

-রিজু



সমাধান :
এক্সটার্নাল হার্ডডিস্কগুলো সাধারণত একটি ক্যাবলের সাহায্যেই পাওয়ার নেয় ও ডাটা ট্রান্সফারের কাজ করে থাকে। তাই পিসির ইউএসবি পোর্ট ভালোমানের হতে হয়। অনেক সময় ডাটা ক্যাবলটি ভালো না হলে এধরনের সমস্যা দেখা দেয়। যেহেতু আপনি অন্য পিসিতে এটি ভালোভাবে ব্যবহার করে দেখেছেন, সেহেতু ক্যাবলে তেমন সমস্যা নেই বলে মনে হচ্ছে। হার্ডডিস্কটি কাজ করতে করতে বেশি পাওয়ার টানলে আপনার পিসির পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিটের ওপর চাপ পড়ে পাওয়ার ফেইলুরের কারণে তা ঘটতে পারে, আবার অ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যার ডাটা ট্রান্সফারের সময় ফাইল চেকিং করার কারণে বাধা দিতে পারে। আপনি অন্য ইউএসবি পোর্টগুলোতে হার্ডডিস্কটি লাগিয়ে দেখুন কাজ করে কিনা, ডাবল ইউএসবি কানেক্টযুক্ত ডাটা ক্যাবল কিনে নিতে পারেন, ডাটা ট্রান্সফারের সময় অ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যার ডিজ্যাবল করে রাখতে পারেন বা পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট আপগ্রেড করে দেখতে পারেন। কোন অপশনটি আপনার জন্য কাজ করে, তা চেষ্টা করে দেখুন।


কজ ওয়েব

ফিডব্যাক : jhutjhamela@comjagat.com
পত্রিকায় লেখাটির পাতাগুলো
লেখাটি পিডিএফ ফর্মেটে ডাউনলোড করুন
লেখাটির সহায়ক ভিডিও
চলতি সংখ্যার হাইলাইটস